অপপ্রচার–বিভক্তি করোনাভাইরাসকে প্রাণশক্তি জোগাচ্ছে: কাদের

বিএনপিসহ সব রাজনৈতিক দলের উদ্দেশে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেছেন, সরকারের সমালোচনাকে ‘রুটিন ওয়ার্কে’ পরিণত করবেন না। এ ধরনের অপপ্রচার ও বিভক্তি করোনার সংক্রমণ তথা ভাইরাসকে প্রাণশক্তি জোগাচ্ছে। তিনি আরও বলেন, অভিন্ন ও প্রাণঘাতী শত্রুর বিরুদ্ধে লড়াইয়ে দ্বিমত নয়, এক্যবদ্ধতাই সংকট সমাধানের শক্তি। এতে লড়াইয়ে থাকা যোদ্ধারা মনোবল পায়।

আজ বৃহস্পতিবার তাঁর বাসভবন থেকে সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তরের কর্মকর্তদের সঙ্গে ভিডিও ব্রিফিংয়ে এ কথা বলেন ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, স্বাস্থ্যবিধিরি প্রতি উদাসীনতা সংকটকে ঘনীভূত করারই নামান্তর। এ সংকটকালে জনপ্রতিনিধি ও দলীয় নেতা-কর্মীদের স্বাস্থ্যবিধি মেনে জনগণকে সচেতনতায় উদ্বুদ্ধ করতে আহ্বান জানান তিনি।

রোগীদের চিকিৎসা নিশ্চিত করতে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ ও করোনাযোদ্ধাদের দৃষ্টি আকর্ষণ করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেছেন, অভিযোগ আছে, অনেক হাসপাতাল করোনা রোগীকে উপেক্ষা করছে। যথাযথ সেবা ও যত্ন দিচ্ছে না। এ সংকটে হাসপাতালে উপেক্ষিত হলে রোগীরা যাবে কোথায়?

এ দুঃসময়ে যেসব গণপরিবহন অতিরিক্তি ভাড়া আদায় করছে, তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়ার অনুরোধ জানিয়ে সড়ক পরিবহনমন্ত্রী বলেন, কিছু কিছু গণপরিবহন অতিরিক্ত ভাড়া আদায় করছে বলে আমরা অভিযোগ পাচ্ছি। পরিবহন মালিক ও শ্রমিকদের মানবিক দৃষ্টান্ত স্থাপনের আহ্বান জানান তিনি।

সবাইকে সচেতন হওয়ার আহ্বান জানিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, বিশ্বে ২১৫টি দেশ ও অঞ্চলের মধ্যে বাংলাদেশ ২১তম অবস্থানে। এ পরিস্থিতির আরও অবনতি ঘটতে পারে বলে বিশেষজ্ঞদের আশঙ্কা। এ অবনতিশীল পর্যায়ে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে এবং সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে ‍শৈথিল্য প্রদর্শন পরিস্থিতিকে আরও নাজুক করে তুলতে পারে।