বাউফলে প্রতিবন্ধী স্কুল ছাত্রীকে পিটিয়ে জখম।

পটুয়াখালীর বাউফলে জমি জমা বিরোধকে কেন্দ্র করে নিশি আক্তার (১৬) নামের এক শারীরিক প্রতিবন্ধী স্কুল ছাত্রীকে পিটিয়ে জখম করেছে প্রতিপক্ষ।।

শনিবার (১৬ মে) সকাল সাড়ে ১১ টার দিকে উপজেলার মল্লিকডুবা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।।
স্কুল ছাত্রী নিশি ঐ এলাকার বাবুল হাওলাদারের মেয়ে ও গাজীমাঝি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ছাত্রী।

সরেজমিনে জানাযায়, একই বাড়ীর জাহাঙ্গীর হাওলাদার গংরা বাড়ীর এজমালী যায়গায় গত দুই বছর যাবৎ ঘর নির্মানের পায়তারা চালায় কিন্তু বাবুল হাওলাদার মিমাংশা না হওয়া পর্যন্ত ঘর না উঠানোর জন্য নিষধ করেন, এ নিয়ে দীর্ঘদিন যাবৎ বিরোধ চলে আসছিলো, এরই ধারাবাহিকতায় ঘটনার দিন উঠানে বাবুল হাওলাদার মুগডাল রৌদ্রে দিলে প্রতিপক্ষ জাহাঙ্গীর হাওলাদার গংদের বেশ কিছু হাঁস ডাল খেয়ে ফেলে, তখন তিনি (বাবুল হাং) হাঁস নেয়ার জন্য বললে তার উপরে চরাও হয়ে প্রতিপক্ষ জাহাঙ্গীর হাওলাদর, তার ভাই মোসলেম হাওলাদার, বিউটি বেগম সহ কয়েকজন লাঠি সোটা নিয়ে হামলা করে মাটিতে ফেলিয়ে দিলে প্রতিবন্ধী নিশি ও তার মা ধরতে গেলে তাদেরকে পিটিয়ে জখম করে,
নিশি জানানঃ আমার বাবাকে তারা লাঠি দিয়ে পিটিয়ে মাটিতে ফেলে দিলে আমি আর আমার মা এগিয়ে গেলে তারা আমাদেরকেও পিটিয়ে জখম করে এক পর্যায়ে আমার চুল গাছের সাথে পেছিয়ে বিভিন্ন যায়গায় জখম করে,
এদিকে জাহাঙ্গীর হাওলাদার জানান, আমরা নিশিকে মারিনি, তবে মারামারির সময় ওর শরীরের কোন যায়গায় লাঠির আঘাত লাগছে কিনা তা আমাদের খেয়াল নাই,